স্বাস্থ্য

জানুয়ারী ২৭, ২০১৬, ১১:৪৯ পূর্বাহ্ন

বগুড়ায় অদক্ষ টেকনিশিয়ানদের ভুল রিপোর্টে ক্ষতিগ্রস্ত রোগীরা

জেলা প্রতিনিধি

বগুড়া: গত ২০ বছরে বগুড়ায় গড়ে উঠেছে তিন শতাধিক মেডিকেল ল্যাব ও ডায়াগনস্টিক সেন্টার। তবে এই প্রতিষ্ঠানগুলোতে স্বাস্থ্য পরীক্ষার কাজে নিয়োজিত রয়েছে মানহীন মেডিকেল টেকনোলজি ইন্সটিটিউটের সার্টিফিকেটধারীরা। অদক্ষ এই টেকনিশিয়ানদের দেয়া ভুল রিপোর্টে প্রতিনিয়ত ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন রোগীরা।

এদিকে, ল্যাব ও ডায়াগনস্টিক কর্তৃপক্ষ নানা অজুহাত দিলেও নীতিমালা অমান্যকারীদের শাস্তির আওতায় আনার দাবি চিকিৎসক নেতাদের।

হাসপাতাল কিংবা ক্লিনিকে চিকিৎসা নিতে আসা রোগীদের দ্রুত স্বাস্থ্য পরীক্ষার নামে বগুড়ায় গড়ে উঠেছে কয়েকশ' মেডিকেল ল্যাব ও ডায়াগনস্টিক সেন্টার। নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্য পরীক্ষায় অভিজ্ঞ ও দক্ষ মেডিকেল টেকনোলজিস্ট নিয়োগ দেয়ার নিয়ম রয়েছে।

কিন্তু এখানকার বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানে অল্প বেতনে নিয়োগ দেয়া হয়েছে মানহীন মেডিকেল টেকনোলোজি ইন্সটিটিউটের সার্টিফিকেটধারী শিক্ষার্থীদের। অদক্ষ এসব টেকনিশিয়ানরাই সই দিয়ে ছেড়ে দিচ্ছেন বিভিন্ন পরীক্ষার রিপোর্ট। আর এই ভুল রিপোর্টের মাশুল দিতে হচ্ছে রোগী ও তাদের স্বজনদের। আর, কৌশলে বিষয়টি স্বীকার করেছে ল্যাব ও ডায়াগনস্টিক কর্তৃপক্ষ।

এদিকে, সমস্যা সমাধানে সব প্রতিষ্ঠানগুলোকে নজরদারির আওতায় আনা দরকার বলে মনে করেন চিকিৎসক নেতারা।

বগুড়ার তিন শতাধিক মেডিকেল ল্যাব ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারে সহস্রাধিক টেকনোলজিস্ট কর্মরত রয়েছেন। এর অধিকাংশই বেসরকারি টেকনোলোজি ইন্সটিটিউট থেকে পাশ করা।

নিউজ পেজ২৪/আরএ