আন্তর্জাতিক

জুন ৬, ২০১৭, ১০:৫৮ পূর্বাহ্ন

চলন্ত অটো থেকে সন্তানকে ছুড়ে ফেলে মাকে ধর্ষণ

নিউজপেজ ডেস্ক

চলন্ত অটো রিকশা থেকে আট মাসের শিশুকন্যাকে মায়ের কোল থেকে ছুড়ে ফেলে হত্যা করেছে তিন ব্যক্তি। পরে ওই তিনজন শিশুটির মাকে ধর্ষণ করে। ওই তিন ব্যক্তির বিরুদ্ধে গণধর্ষণের অভিযোগ এনেছেন ওই মা। ভারতের হরিয়ানা রাজ্যের গুরুগ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ওই নারী বলেন, তারা আমার আট মাসের মেয়েকে রাস্তায় ছুড়ে ফেলে দেয়। আমার অনেক কাকুতি-মিনতিও তাদের মন গলাতে পারেনি। পরে তারা আমাকে ধর্ষণ করে।

গত ২৯ মে মধ্যরাতে ঘটনাটি ঘটলেও গণমাধ্যমে তা প্রকাশ পায় গতকাল সোমবার। ঘটনার পরদিন ৩০ মে ধর্ষণের শিকার নারীর প্রথম অভিযোগ পেয়ে পুলিশ হত্যা ও উৎপীড়নের মামলা করেছে।

পুলিশ জানিয়েছে, মাথায় আঘাত লাগায় শিশুটি মারা গেছে। ২৩ বছর বয়সী ওই নারীকে জোর করে অটোতে তোলা হয়। প্রতিবেশীর সঙ্গে ঝগড়ার জের ধরে ওই নারী শিশুকন্যাকে নিয়ে বাড়ি থেকে বেরিয়ে আসেন। তার স্বামী কাজের জন্য বাড়ির বাইরে ছিলেন। তাই তিনি রাতটি খান্ডা রোডে মা-বাবার বাসায় কাটানোর সিদ্ধান্ত নেন।

ওই নারী পুলিশকে বলেন, অটোতে তোলার পরই তারা আমাকে যৌন হয়রানি করা শুরু করে। আমি তাদের বাধা দেওয়ার চেষ্টা করি এবং চিৎকার করতে থাকি। এ সময় আমার মেয়ে কান্না শুরু করে। তখন তারা আমার মেয়েকে আমার কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে রাস্তায় ছুড়ে মারে। আমি অনেক কাকুতি-মিনতি করি। কিন্তু তারা থামেনি। আমাকে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়।

পুলিশ জানিয়েছে, ওই নারী ইন্ডাস্ট্রিয়াল মডেল টাউনশিপ (আইএমটি) মানেসরের কাছাকাছি একটি গ্রামে থাকেন। সেখান থেকে প্রথমে একটি ট্রাকে উঠেন। কিন্তু ট্রাক চালক মদ্যপ থাকায় এবং তাকে বিরক্ত করায় খেরকি দৌলা টোল প্লাজায় এসে তিনি নেমে পড়েন। কিন্তু এরপর তার সঙ্গে আরও ভয়াবহ ঘটে। সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া


নিউজপেজ২৪/ এ বি