আন্তর্জাতিক

জুলাই ৮, ২০১৭, ৪:০৬ অপরাহ্ন

কনের বয়স ৭৩, বরের ১৫!

নিউজপেজ ডেস্ক

প্রেম কোনো আইন বা বাধা মানে না। মানে না কোনো ধর্ম বা জাতি। তবে বিয়ের ক্ষেত্রে পাত্রের চেয়ে পাত্রীর বয়সের ব্যবধান এতো বেশি হওয়াটা খুবই বিরল। ইন্দোনেশিয়ায় এমনই এক ঘটনা ঘটেছে।

দেশটির বিবাহ আইন ভঙ্গ করে ৭৩ বছরের এক বৃদ্ধাকে বিয়ে করেছে ১৫ বছরের এক কিশোর। শুধু তাই নয়, তাদের বিয়ে না দিলে আত্মহত্যারও হুমকি দেওয়া হয়েছিল। পরে গ্রামের লোকজন বাধ্য হয়ে তাদের বিয়ে দেন।

প্রবীণ রোহায়া বিনতে কিয়াগাস মুহাম্মদ জাফর (৭৩) কিশোর সেলামেত রিয়াদির (১৫) প্রতিবেশী। সেলামেত রিয়াদি ম্যালেরিয়ায় আক্রান্ত হলে রোহায়া তার সেবা করেন। সেবা করার সময়ই দুজনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এরপর তারা বিয়ে করার সিদ্ধান্ত নেয়।

তবে ইন্দোনেশিয়ার আইন অনুযায়ী, নারীদের কমপক্ষে ১৬ বছর ও পুরুষদের ১৯ বছরের নিচে বিয়ে করা অবৈধ। যদিও এর থেকে কম বয়সীরা দেশটির ধর্মীয় আদালতে গিয়ে বিয়ে করতে পারে। তবে সে ক্ষেত্রে তাদের বাবা-মায়ের অনুমতির প্রয়োজন হয়।

তবে সেলামে রিয়াদির বাবা-মা না থাকায় বিবাহের এই আইনের কারণে সমস্যায় পড়েন তিনি। তাই এই প্রবীণের সঙ্গে সঙ্গে বিয়ে না দিলে আত্মহত্যার হুমকি দেয় রিয়াদি।

অনেক আগেই রিয়াদির বাবা মারা যান। পরে তার মা আরেকজনকে বিয়ে করে অন্যত্র চলে গিয়েছিলেন।

রিয়াদির গ্রামের গ্রামপ্রধান কিক এনি বলেন, ‘সেলামেত অনেক ছোট, কিন্তু আমরা তাদের বিয়ে দিয়েছি। কারণ, সে আত্মহত্যার জন্য হুমকি দিয়েছিল।’


নিউজপেজ২৪/ এ বি