সারাদেশ

জানুয়ারী ১১, ২০১৮, ৯:২৮ অপরাহ্ন

বয়স এবং ছাত্রত্ব নিয়ে হতাশা নবীনগর উপজেলা ছাত্রলীগ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধি :

সম্মেলনের আশায় আশায় বছর পার হয়েছে নবীনগর উপজেলা ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের। সংসদ সদস্য ফয়জুর রহমান বাদল ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র নেতৃবৃন্দ কয়েক দফা মৌখিক তারিখ দিয়েছে কিন্তু সম্মেলন আর হয়নি।গত ০৬/০৭/ ২০১৪ সালে এক বছর মেয়াদি উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি হয়েছিলো। কিন্তু এরপর ৩ বছর ৭ মাস পেরোলে ও সম্মেলনের দেখা পাননি ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। হতাশা দেখা দিয়েছে বয়স, ছাত্রত্ব নিয়ে তাদের মধ্যে। তবে সম্মেলন নিয়ে অনিশ্চিয়তা থাকলেও দলে পছন্দের পদ পেতে তৎপর ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। জানা যায় গত ২০১৪ সালের ৬ জুলাই আব্দুল্লা আল রোমান কে সভাপতি ও আব্দুল্লা আল মামুন কে সাধারণ সম্পাদক করে ৯১ সদস্য বিশিষ্ট নবীনগর উপজেলা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হয়। এই কমিটি দিয়ে গত ৩ বছেরর ও বেশি সময় ধরে চলছে। সম্মেলন অনিশ্চয়তায় পড়ায় নেতাকর্মীদের মাঝে হতাশার পাশাপাশি চাপা ক্ষোভও দেখা দেয়। আগামী কমিটিতে সভপতি প্রার্থী হিসেবে উপজেলা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি মোঃ আবু সাঈদ, কলেজ ছাত্রলীগের আহ্বায়ক আরিফুল ইসলাম রাজীব, পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এবিএম নাজমুল হাসান জেমস্ ও নিয়মিত ছাত্র উপজেলা ছাত্রলীগের উপ প্রচার সম্পাদক নাজিম হোসেন প্রমুখ। এছাড়া সাধারণ সম্পাদক পদে পদপ্রার্থী হিসেবে কলেজ ছাত্রলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক সাদ্দাম হোসেন, উপজেলা ছাত্রলীগের তথ্য ও গবেষনা বিষয়ক সম্পাদক এহসান আহম্মেদ ও দপ্তর সম্পাদক সাকিব মাহমুদের নাম শুনা যাচ্ছে। তবে এসব প্রার্থীদের মধ্যে মোঃ আবু সাঈদ, আরিফুল ইসলাম রাজীব,এবিএম নাজমুল হাসান জেমস্ অনেক আগেই তাদের বয়স ও ছাত্রত্ব হারিয়েছেন। তাছাড়া কোনো কোনো প্রার্থীর বিরুদ্ধে নানা অপরাধের অভিযোগ রয়েছে বলে জানা গেছে। উল্লেখ্য সভাপতি পদপ্রার্থী মোঃ আবু সাঈদের বয়স ২৯ বছর ১১ মাস অতিবাহিত হয়েছে বলে তার জাতীয় পরিচয়পত্র থেকে জানা যায়।